নিষিদ্ধ চিনা অ্যাপ উইবোতে মোদীর ২ লাখ ৪০ হাজার ফলোয়ার্স!

নিষিদ্ধ চিনা অ্যাপ উইবোতে মোদীর ২ লাখ ৪০ হাজার ফলোয়ার্স!

National


নিজস্ব প্রতিবেদন : লাদাখে গালোয়ান উপত্যকায় আগ্রাসনের চেষ্টার পাল্টায় চিনের উপর কার্যত ‘ডিজিটাল স্ট্রাইক’ ঘোষণা করেছে কেন্দ্র। টিকটক, জেনডার, শেয়ার ইট, ইউসি ব্রাউজার, হ্যালো, উইচ্যাট সহ ৫৯টি চিনা অ্যাপকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে কেন্দ্র। নিষিদ্ধ ঘোষণা করা সেই অ্যাপের দলে আছে উইবো (Weibo) অ্যাপটিও। এই অ্যাপে অ্যাকাউন্ট ছিল প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীরও।

ভারতে যেমন টুইটারের জনপ্রিয়তা, চিনে তেমনই উইবো-র জনপ্রিয়তা। উইবো-তে ভেরিফায়েড অ্যাকাউন্ট ছিল মোদীর। চিনের মানুষদের সঙ্গে জনসংযোগ বৃদ্ধির লক্ষ্যেই উইবো-তে যোগ দেন মোদী। যোগ দেওয়া মাত্রই টুইটারের ম মতো উইবো-তেও বাড়তে থাকে মোদীর ফ্যান-ফলোয়িং। সেখানেও মোদীর ফলোয়ার্সের সংখ্যা বিশাল। মোদীর ফলোয়ার্সের সংখ্যা সেখানে ২ লাখ ৪০ হাজার। 

তবে উইবো, উইচ্যাট নিয়ে বিতর্কের শুরু লাদাখ সংঘর্ষের পর থেকেই। ১৫ জুন গালোয়ান উপত্যকায় রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে ২০ জন জওয়ান শহিদ হওয়ার পর বিদেশমন্ত্রকের জারি করা বিবৃতি ও মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য মুছে দেওয়া হয় চিনা অ্যাপগুলি থেকে। হিংসামূলক ও নিয়ম লঙ্ঘন করছে, এই অজুহাতে পোস্টগুলি ডিলিট করে দেয় অ্যাপ কর্তৃপক্ষ। 

এবার পাল্টা আঘাত হানল ভারতও। শুধু অ্যাপ নিষিদ্ধ করা-ই নয়, তথ্য প্রযুক্তি ক্ষেত্রে চিনা সামগ্রী ব্যবহারও কেন্দ্র নিষিদ্ধ ঘোষণা করতে চলেছে বলে সূত্রের খবর। সবমিলিয়ে সীমান্তে যেমন উত্তেজনা অব্যাহত, তেমনই নেট দুনিয়াতেও এবার ‘যুদ্ধের’ আবহ।

আরও পড়ুন, ভোর রাতে বিশাখাপাটনমে ফের গ্যাস লিক করে বিপর্যয়, ২ জনের মৃত্যু





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *